প্রকাশিত : Wed, Sep 27th, 2017

তুরাগে চুরি হওয়ার পাঁচদিনেও উদ্ধার হয়নি ছয়মাসের শিশু শাহাবীব  ।।

মোল্লা তানিয়া ইসলাম (তমা ):   রাজধানীর তুরাগথানাধীন ধউর আশুতিয়া এলাকা থেকে শাহাবীব নামের ছয়  মাসের একটি শিশু চুরি হওয়ার পাঁচ দিন অবহিত হলেও  উদ্ধার হয়নি চুরি হওয়া শিশুটি । এ নিয়ে শিশুটির পরিবারসহ এলাকাবাসী মধ্যে চরম হতাশা দেখা দিয়েছে। খোঁজ নিয়ে জানা যায় প্রায় তিন বছর পূর্বে শেরপুর জেলার, শ্রীবর্দী থানার, রানীসিমল গ্রামের,শাহাজাহান মিয়ার ছেলে, মোঃ জনি মিয়া (28) তার নববধূ সুমাইয়াকে নিয়ে ধউর আশুতিয়া এলাকায় সচিব সাহেবের বাড়িতে ভাড়াটিয়া হিসাবে বসবাস শুরু করে এবং স্থানীয় একটি গার্মেন্টসে শ্রমিক হিসাবে চাকুরী করে ।গত প্রায় ছয় মাস পূর্বে জনি ও সুমাইয়া দম্পতির কোল জুড়ে ফুটফুটে একটি ছেলে সন্তানের জন্ম হয়, আদর করে তার নাম রাখা হয় শাহাবীব এবং সুখ শান্তিতেই দিন কাটছিল জনি সুমাইয়া দম্পতির । চলতি মাসের 17 তারিখে পাঁশের একটি খালি রুমে 20/22 বছর বয়সের সুন্দরী এক অজ্ঞাত মহিলা ভাড়াটিয়া হিসাবে উঠেন । বাসায় উঠার পর থেকেই ঐ মহিলা শাহাবীবকে কোলে নিত এবং খুব আদর করত। ঘটনার দিন 23 শে সেপ্টম্বর সন্ধ্যা সাতটার দিকে শাহাবীব ঐ মহিলার কোলে থাকা অবস্থায় বিদ্যুৎ চলে যায় ।শাহাবীবের মা দোকানে মোমবাতি আনতে গেলে এ সুযোগে শাহাবীবকে নিয়ে ঐ মহিলা কেটে পড়ে । শাহাবীবের মা দোকান থেকে এসে ঐ মহিলাসহ তার সন্তানকে দেখতে না পেয়ে বিভিন্ন জায়গায় খোঁজাখোজি শুরু করে , অনেক খোঁজখোজির পরও তাদের কোন সন্ধান না পেয়ে পরের দিন শাহাবীবের বাবা জনি মিয়া বাদী হয়ে তুরাগ থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেণ যার নং 1087 তাং 24/9/17ইং। উক্ত ঘটনার পাঁচ দিন অবহিত হলেও শাহাবীব ও ঐ মহিলাকে উদ্ধার করা সম্ভব না হওয়ায় এলাকাবাসীর মধ্যে চরম হতাশা দেখা দিয়েছে ।একমাত্র সন্তানকে হারিয়ে বাবা-মা প্রায় পাগল হয়ে দ্বারে দ্বারে ঘুরছে এবং যাকে সামনে পায় তাকেই বলে আমার সন্তানকে এনে দেও, সন্তানকে ছাড়া আমি বাঁচতে পারব না । উক্ত বিষয়ে তুরাগ থানায় যোগাযোগ করা হলে থানার অফিসার ইনর্চাজ(ওসি) নুরুল মুত্তাকিন জানান, ঘটনা সম্পর্কে আমরা অবগত এবং শাহাবীবকে উদ্ধারে আমাদের জোর চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

11,643 total views, 6 views today

Related Posts

Share

Comments

comments

রিপোর্টার সম্পর্কে

%d bloggers like this: